ই-পেপার

কীর্তনখোলায় মেয়র সাদিক’র চোখ ধাঁধানো ‘বাইক রাইডস্’

নিজস্ব প্রতিবেদক | আপডেট: মার্চ ২৮, ২০২১

শনিবার বরিশালের কীর্তনখোলা নদীতে অনুষ্ঠিত হয়ে গেলো ঐতিহ্যাবাহী ‘নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতা’। শহীদ আব্দুর রব সেরনিয়াবাত এর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে এ নৌকা বাইচের আয়োজন করেন বরিশাল সিটি মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ।

দীর্ঘদিন পরে কীর্তনখোলায় দৃষ্টিনন্দন নৌকা বাইচ দেখতে দুপুর থেকেই নদীর দুই প্রান্তে ভীর জমায় শত শত মানুষ। নৌকা বাইচ শুরুর অপেক্ষার প্রহর গুনতে গিয়ে অনেকটা হাঁপিয়ে উঠেন দর্শকরা।

ঠিক সেই মুহুর্তেই নদীর তীরে অপেক্ষমান শত শত দর্শককে তাক লাগিয়ে দেন বরিশাল সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ও মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ।

তিনি নগরীর লঞ্চ ঘাট থেকে শুরু করে শহীদ আব্দুর রব সেরনিয়াবাত সেতুর তলদেশ পর্যন্ত দীর্ঘ পথ পাড়ি দেন ওয়াটার বাইক নিয়ে। এসময় দর্শকদের দৃষ্টি চলে যায় তার ওয়াটার বাইক রাইড্স এর দিকে।

হঠাৎ করেই কীর্তনখোলার বুক চিড়ে ওয়াটার বাইক নিয়ে দূরন্ত গতীতে ছুটে চলে তিনি। কীর্তনখোলায় দূরন্ত গতীতে তার ‘ওয়াটার বাইক রাইড’ দেখে মুগ্ধ হন অপেক্ষার প্রহর গুনতে গিয়ে মলিন হয়ে পড়া দর্শনার্থী এবং অতিথিরা।

অনেকটা হতবাকও হন তারা। নৌকা বাইচের পাশাপাশি নগর সেবক সাদিক আবদুল্লাহ’র এমন পারফরমেন্স দর্শনার্থীদের আনন্দের বারতি খোরাক জোগায়।

নদীর তীরে নৌকা বাইচ উপভোগ করতে আসা বেসরকারি উন্নয়ন সংগঠক আলমগির হোসেন সমুন বলেন, ‘ইতিপূর্বে মেয়র এর বিভিন্ন অভিজ্ঞতার কথা শুনেছি। তিনি নিজে ভেকু মেশিন, রোলারসহ বিভিন্ন যান চালিয়েছেন। যেটা ইতিপূর্বে কোন মেয়র করে দেখাতে পারেননি। তিনি যে দক্ষতার সাথে ওয়াটার বাইক রাউডস্ করতে পারেন সেটা জানা ছিল না।

নৌ পুলিশের একজন কর্মকর্তা বলেন, ‘সিটি মেয়র যেভাবে ওয়াটার বাইক রাইডস্ করেছে সেটা পূর্ব অভিজ্ঞতা ছাড়া করা সম্ভব নয়। কেননা আমাদের নৌ পুলিশের অনেক সদস্যই রয়েছেন যারা এখনো ওয়াটার বাইক রাইডস্ চালাতে অনুভিজ্ঞ। কিন্তু মেয়র যেভাবে এটা পরিচালনা করলেন সেটাতে বোঝা যায় তিনি অবশ্যই এ বিষয়ে পূর্বে থেকেই অভিজ্ঞ।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন