ভান্ডারিয়ায় ছাদ কৃষিতে ফয়সালের সফলতা

২৮ আগস্ট ২০২০, ২১:২৫

এম. শফিকুল ইসলাম আজাদ, ভান্ডারিয়া

পিরোজপুরের ভান্ডারিয়া উপজেলার চরখালী বিসমিল্লাহ চত্বরে আসলেই চোখে পরে ছাদ কৃষির এক মনোমুগ্ধকর ফলের বাগান। স্থানীয় এস এম ফয়সাল নামক ব্যক্তি তার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের ২২শত বর্গফুট ছাদ জুড়ে দেশী-বিদেশী ৫২ প্রকার ফুল, ফুলের গাছ গুলো চমৎকার করে সাজিয়ে নাম দিয়েছেন (গার্ডেন-৫২)।

বাগান জূড়ে আম, জাম, কলা, পেপে, ডালিম, লটকন, পেয়ারা, জাম্বুরা , আপেল, আঙুর,মালটা সহ একাধিক ফলের ভিন্ন ভিন্ন জাত সহ শোভা পাচ্ছে গার্ডেন-৫২ জুড়ে। ফলের পাশাপাশি ফুল গাছ গুলো চোখে পড়ার মতো। পাশের বড় মাচায় বিভিন্ন রং এর অনেক কবুতর পুরো ছাদ যেন একটা পরিকল্পিত খামার।

এস এম ফয়সাল বিএসএল নিউজকে জানান, বিগত তিন বছর ধরে ছাদ কৃষির উপযোগী করে তুলতে হয়েছে ছাদের কাঠামো। ভালো মাটি আর বিভিন্ন জায়গায় ঘুরে আবহাওয়ার উপযোগী গাছের চারা বাছাই করার কারনে এতো ফলের সমারোহ।

ভাষা শহীদের সম্মানে বাগানের নাম রাখা হয়েছে ‘গার্ডেন-৫২।’ উপজেলা উদ্ভিদ সংরক্ষণ কর্মকর্তা মোঃ লূৎফর রহমান লিখন হাতে কলমে সহযোগিতা করেছে বলে তিনি জানান।

তিনি আরো বলেন, প্রথমে সখ ছিল। সখের ছাদ বাগানে উৎপাদিত বিষমুক্ত ফল নিজের পারিবারিক চাহিদা পুরন করে এখন প্রতিবেশী ও আত্মীয় স্বজনদের মাঝেও বিতরন করছি।

কবুতর প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ৫০ হাজার টাকার গিরিরাজসহ অনেক জাতের কবুতর রয়েছে তার সংগ্রহে। প্রতিদিন এর পেছনে সকাল ও বিকালের ২ ঘন্টা করে শ্রম দিতে হচ্ছে বলেও জানান তিনি। ইতিমধ্যেই অনেকে তার এই ছাদ বাগান দেখে উদ্বুদ্ধ হয়ে বাগান তৈরী করার কাজ শুরু করেছে অনেক বেকার যুবক।