গ্রেনেড হামলায় নিহতদের স্মরণে স্পেন শাখা ছাত্রলীগের আলোচনা সভা

বরিশাল নিউজ বুধবার, আগস্ট ২৮, ২০১৯

২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলায় নিহতদের স্মরণ ও অপরাধীদের দ্রুত বিচার দাবীতে স্পেনে আলোচনা সভা ও দোয়া-মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। বাংলাদেশ ছাত্রলীগ স্পেন শাখার আয়োজনে দেশটির মাদ্রিদে বাংলা টাউন রেস্টুরেন্টে এ আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়।

ছাত্রলীগ নেতা সফিউল আলম সুমন এর সভাপতিত্বে এবং হানিফ মিয়াজীর সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্পেন আওয়ামী লীগ এর ১ নং যুগ্ন আহ্বায়ক আব্দুল কাইয়ুম সেলিম।

এছাড়া বিশেষ অতিথি ছিলেন যুগ্ম আহ্বায়ক ফয়জুর রহমান বড় ভাই, যুগ্ম আহ্বায়ক বদরুল ইসলাম মাস্টার, আহ্বায়ক কমিটির সদস্য দবির তালুকদার, আব্দুল খালেক, মুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রহমান, যুবলীগ নেতা ওলিউর রহমান, এনাম আলী খান, শেখ রুবেল উদ্দীন, আহমদ আছাদুর রহমান, হাজী তৈয়বুর রহমান, ফয়সল ইসলাম, আব্দুল আজিজ, আব্দুল মালেক, রনি ইসলাম।

আলোচনা সভায় স্পেন শাখা ছাত্রলীগের নেতৃবৃন্দ বলেছেন, ‘বঙ্গবন্ধুর হাতেগড়া ছাত্রলীগকে কোন বসন্তের কোকিল ও ঘাপটিমারা কুলাঙারদের ক্রীড়নকে পরিনত হতে দেয়া হবেনা। ‘স্টার অব দা ইষ্ট, মাদার অব হিউমেনিটি’ বঙ্গবন্ধু কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশ মোতাবেক ছাত্রলীগ তার মাদার অর্গানাইজেশন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সহায়ক শক্তি হিসাবে নিজেদের আনুগত্যপ্রকাশ ও ভবিষ্যত কর্মসুচী গ্রহন করবে। এর অন্যথা করে কেউ ছাত্রলীগ পরিচয় বহন করতে পারবেনা। ঐতিহ্যবাহী ছাত্রলীগের নাম ভাঙিয়ে বিশৃংখলা সৃষ্টিকারী অপশক্তির মোকাবেলায় সর্বস্তরের নেতাকর্মীকে সজাগ থাকার আহ্বান জানান নেতৃবৃন্দ।

অতিথিবৃন্দ তাদের বক্তৃতায় বলেন, ‘১৫ ই আগষ্টের অনুষ্ঠান আওয়ামী পরিবারের তারকা চিহ্নত সর্বোচ্চ অনুষ্ঠান। যারা ছাত্রলীগ নাম নিয়ে শোক সভাতে স্লোগান এবং হাততালি দিয়ে হট্টগোল সৃষ্টি করে তারা ছাত্রলীগের পরিচয় বহন করার প্রচেষ্টা, তামাশা বৈ কিছুই নয়।ভবিষ্যতে কেউ ছাত্রলীগ পরিচয় দিতে চাইলে তাকে রাজনৈতিক শিষ্টাচার জেনে বুঝে, চর্চা করে নিজেকে ছাত্রলীগ দাবী করার আহ্বান জানান নেতৃবৃন্দ।

তারা আরো বলেন শুধু ফেসবুকে ছবি আপলোড দিয়ে নিজেকে নেতা দাবী করা নয়, বরং সাংগঠনিক নিয়মানুবর্তিতা ও শিষ্টাচার মেনে, বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ধারন করে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করার নাম-ই হলো ছাত্রলীগ।

সমাপনী বক্তব্যে ছাত্রলীগ নেতা সফিউল আলম সুমন বলেন, যারা অবিভাবক সংগঠনের নেতৃবৃন্দের অনুমতি ছাড়া কোন কার্যক্রম পরিচালনা করবে তারা মুজিব আদর্শের সৈনিক হতে পারে না তারা মতলববাজ! যারা সাংগঠনিক নিয়মের বাইরে কাজ করবে তাদের বিরুদ্ধে ভবিষ্যতে সাংগঠনিক ব্যাবস্থা গ্রহন করা হবে, এ ব্যাপারে অভিভাবক সংগঠনের নির্দেশ মোতাবেক পরবর্তীতে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে হুঁশিয়ারি উচ্চারন করেন তিনি।

অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন ছাত্রলীগ নেতা আল আমিন আহমেদ, কবির উদ্দিন, শাহেদ রাজা, শেখ সুজন,সিয়াম আহমেদ, রাকিবুল ইসলাম, আব্দুল আহাদ প্রমুখ।